Brand-Promo-tmc-win2

চাকদহে খুন বিজেপি কর্মী! গা ঢাকা দিলেন তৃণমূল নেতা

Share Link:

চাকদহে খুন বিজেপি কর্মী! গা ঢাকা দিলেন তৃণমূল নেতা

নিজস্ব প্রতিনিধি: ভোট চলাকালীন সময়ে গতকাল বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষের ঘটনায় উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল নদিয়া জেলার রানাঘাট ও কল্যাণী মহকুমা এলাকা। সেই ভোট মিটে যাওয়ার পরেও উত্তেজনার আঁচ জিইয়ে রাখলো এক বিজেপি কর্মীর রহস্যজনক মৃত্যুর ঘটনা। সব থেকে চাঞ্চল্যকর বিষয় ওই যুবকের মৃত্যুর ঘটনা সামনে আসতেই এলাকা থেকে গা ঢাকা দিয়েছেন এক তৃণমূল নেতা। আর তার জেরেই এখন অভিযোগ উঠেছে বিজেপির এই কর্মীকে খুন করা হয়েছে আর তার সঙ্গে ওই তৃণমূল নেতা জড়িত।
 
রবিবার সকালে চাকদহ থানার উত্তর এনায়েতপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের মণ্ডলপাড়া গ্রামে নিজের বাড়ির সামনে থেকেই দিলীপ কীর্তনীয়া(৩১) নামে এক বিজেপি কর্মীর দেহ উদ্ধার করা হয়। অভিযোগ, গতকাল রাতে ভোট মিটে যাওয়ার পরে তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যান তৃণমূলের অঞ্চল সভাপতি দুলাল মণ্ডলের লোকজন। কিন্তু ওই যুবক গতকাল রাতে আর বাড়ি না ফিরে আসায় খোঁজখবর শুরু করে তাঁর বাড়ির লোকেরা। কিন্তু কোথাও তাঁর কোনও সন্ধান মেলেনি। অথচ এদিন দিলীপের দেহ তাঁর বাড়ির উঠোনেই পড়ে থাকতে দেখা যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে দিলীপের দেহ উদ্ধার করে তা ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়। এই ঘটনার পর উত্তেজিত গ্রামবাসীরা দুলাল মণ্ডলের বাড়িতে ভাঙচুর চালান। যদিও তার আগে থেকেই ঘটনার আঁচ পেয়ে এলাকা থেকে গা ঢাক দেয় দুলাল।
 
ঘটনার জেরে চাকদহের তৃণমূল প্রার্থী শুভঙ্কর সিংহ জানিয়েছেন, এই ঘটনার সঙ্গে তৃণমূলের কোনও যোগাযোগ নেই। ঘটনাটি বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের ফল বলেই দাবি করেছেন তিনি। যদিও বিজেপি প্রার্থী বঙ্কিমচন্দ্র ঘোষ জানিয়েছেন, 'শনিবার সকাল থেকে দফায় দফায় গণ্ডগোল তৈরি করেছে তৃণমূল। ভোটে হেরে যাওয়ার ভয়ে আমাদের কর্মীকে খুন করেছে তৃণমূল। পুলিশ তদন্ত করে দোষীদের চিহ্নিত করে উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করুক।' রবিবার সকালে দিলীপের বাড়ির উঠোনের পাশে ঝোপে তাঁর দেহটি পড়ে থাকতে দেখা যায়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, তাঁর নাক, মুখ ও কান দিয়ে রক্ত ঝরছিল। দিলীপের পরিবারের দাবি, তাঁকে পিটিয়ে খুন করা হয়েছে। এই ঘটনা প্রসঙ্গে বিজেপি নেতা জয়প্রকাশ মজুমদার জানান, 'এটাই তৃণমূলের সংস্কৃতি। পোলিং এজেন্টকে বাড়ি থেক ডেকে নিয়ে গিয়ে খুন করছে ওরা। বিজেপি করা তৃণমূলের কাছে অপরাধ। দলের উপরতলা থেকে বিরোধী শূন্য রাজনীতি করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ওদের কর্মীদের। তাই দলের নিচুতলার কর্মীরা খুনোখুনি করছে। দোষীদের শাস্তি চাই।' যদিও অভিযোগ উড়িয়ে রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তাপস রায় জানিয়েছেন, 'উনিশের লোকসভার পর রাজ্যে খুনোখুনির রাজনীতি আমদানি করেছে বিজেপি। এই ধরনের রাজনীতি করে ওরা আনন্দ পায়। কিন্তু তদন্তের আগে কীভাবে এটাকে খুন বলে দেওয়া যায়? কীভাবে তৃণমূলের বিরুদ্ধে আঙুল তোলা যায় তা আমার জানা নেই। তদন্ত হোক, প্রকৃত সত্য সামনে আসবে।'

Comm Ad 018 Kalna

More News:

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

Comm Ad 2020-himalaya RC

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

2020 New Ad HDFC 05

পূর্বস্থলী ১ নং ব্লকের দক্ষিণ শ্রীরামপুর বাজার স্যানিটাইজেশনে নামলেন বিধায়ক স্বপন দেবনাথ

পূর্বস্থলী ১ নং ব্লকের দক্ষিণ শ্রীরামপুর বাজার স্যানিটাইজেশনে নামলেন বিধায়ক স্বপন দেবনাথ

নির্বাচনের সময় থেকেই করোনা সচেতনতা প্রচারে জোর দিয়েছেন বিদায়ী মন্ত্রী

নির্বাচনের সময় থেকেই করোনা সচেতনতা প্রচারে জোর দিয়েছেন বিদায়ী মন্ত্রী

করোনা নিয়ে নিজের বিধানসভার একাধিক এলাকায় সচেতনতা প্রচার চালিয়েছেন স্বপন দেবনাথ

করোনা নিয়ে নিজের বিধানসভার একাধিক এলাকায় সচেতনতা প্রচার চালিয়েছেন স্বপন দেবনাথ

কোভিড বিধি মেনেই কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৬০ তম জন্মবার্ষিকী পালন করলেন স্বপন দেবনাথ

কোভিড বিধি মেনেই কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৬০ তম জন্মবার্ষিকী পালন করলেন স্বপন দেবনাথ

নিজের এলাকাতেই ২৫ শে বৈশাখ উদযাপন করেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী

নিজের এলাকাতেই ২৫ শে বৈশাখ উদযাপন করেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী

স্বামী করণ সিং গ্রুভারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর ছবি পোস্ট করেছেন বিপাশা

স্বামী করণ সিং গ্রুভারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর ছবি পোস্ট করেছেন বিপাশা

বিকিনিতে নিজের অনুরাগীদের মনে উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন বিপাশা বসু

বিকিনিতে নিজের অনুরাগীদের মনে উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন বিপাশা বসু

মলদ্বীপে খোশমেজাজে রয়েছেন বিপাশা

মলদ্বীপে খোশমেজাজে রয়েছেন বিপাশা

বিপাশার বিকিনি পরা ছবি দেখে বলাই যায় বয়স সংখ্যামাত্র

বিপাশার বিকিনি পরা ছবি দেখে বলাই যায় বয়স সংখ্যামাত্র

হাতে কাজ না থাকায় দাম্পত্য জীবন উপভোগ করছেন বঙ্গতনয়া

হাতে কাজ না থাকায় দাম্পত্য জীবন উপভোগ করছেন বঙ্গতনয়া

সরকারের হাত ধরে সল্টলেকের বুকে চালু হয়েছে প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র। যেখানে মিলবে পোষ্যদের চিকিৎসা পরিষেবা।

সরকারের হাত ধরে সল্টলেকের বুকে চালু হয়েছে প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র। যেখানে মিলবে পোষ্যদের চিকিৎসা পরিষেবা।

সল্টলেকের প্রাণী সম্পদ বিকাশ ভবন প্রাঙ্গণেই এই নতুন প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রের এদিন উদ্বোধন করেছেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ।

সল্টলেকের প্রাণী সম্পদ বিকাশ ভবন প্রাঙ্গণেই এই নতুন প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রের এদিন উদ্বোধন করেছেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ।

এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ ও স্থানীয় বিধায়ক তথা রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু।

এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ ও স্থানীয় বিধায়ক তথা রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু।

এই পশু স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মিলবে ইসিজি, আল্ট্রাসোনোগ্রাফি, রক্ত সিরামের বিভিন্ন পরীক্ষা, পরজীবী সংক্রমণ সংক্রান্ত খুঁটিনাটি বিশ্লেষণ, আধুনিক শল্য চিকিৎসার যাবতীয় সুযোগসুবিধা।

এই পশু স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মিলবে ইসিজি, আল্ট্রাসোনোগ্রাফি, রক্ত সিরামের বিভিন্ন পরীক্ষা, পরজীবী সংক্রমণ সংক্রান্ত খুঁটিনাটি বিশ্লেষণ, আধুনিক শল্য চিকিৎসার যাবতীয় সুযোগসুবিধা।

 আগামী দিনে এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রে মিলবে পোষ্যদের চোখ, কান ও দাঁতের পরীক্ষা পরিষেবাও।

আগামী দিনে এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রে মিলবে পোষ্যদের চোখ, কান ও দাঁতের পরীক্ষা পরিষেবাও।

প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যায়ে এই নবনির্মিত পশু চিকিৎসালয় তৈরি করা হয়েছে।

প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যায়ে এই নবনির্মিত পশু চিকিৎসালয় তৈরি করা হয়েছে।

সারা রাজ্যে প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের অধীনে ১০৪টি রাজ্য প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র, ৮টি পলিক্লিনিক, ৩৪২টি ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ২৭২টি অতিরিক্ত ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্য কেন্দ্র চালু থাকলো বাংলার বুকে।

সারা রাজ্যে প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের অধীনে ১০৪টি রাজ্য প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র, ৮টি পলিক্লিনিক, ৩৪২টি ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ২৭২টি অতিরিক্ত ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্য কেন্দ্র চালু থাকলো বাংলার বুকে।

সল্টলেক ও আশেপাশের এলাকার বাসিন্দাদের কাছে বিশেষ করে যাদের বাড়িতে ছোট পোষ্য থাকে তাঁদের ক্ষেত্রে অনেকটাই সমস্যার সমাধান হয়ে যেতে চলেছে এই নবনির্মীত প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি।

সল্টলেক ও আশেপাশের এলাকার বাসিন্দাদের কাছে বিশেষ করে যাদের বাড়িতে ছোট পোষ্য থাকে তাঁদের ক্ষেত্রে অনেকটাই সমস্যার সমাধান হয়ে যেতে চলেছে এই নবনির্মীত প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি।

Voting Poll (Ratio)

Comm Ad 2020-WB Tourism RC
Comm Ad 2020-LDC Momo