দিল্লিতে ফের বাড়ল দূষণ, বাতাসের গুণমান পৌঁছল ‘অতি খারাপ’ বিভাগে

Published by:
https://www.eimuhurte.com/wp-content/uploads/2021/09/em-logo-globe.png

Srabanti Ghosh

25th November 2021 9:59 am

নিজস্ব প্রতিনিধি: দিল্লির দূষণের হার কমাতে ইতিমধ্যেই সুপ্রিম নির্দেশে জারি করা হয়েছে একাধিক নিয়ম নীতি। বন্ধ হয়েছে স্কুল কলেজ, যান চলাচলের ওপর বেশ কিছু বিধিনিষেধ লাগু করা হয়েছে। কিন্তু তারপরেও কোনওভাবেই দূষণ বৃদ্ধির বিষয়টিকে নাগালে আনা যাচ্ছে না। জানা যাচ্ছে বিগত কয়েকদিনে একাধিক নিষেধাজ্ঞা জারির পরে দূষণের মাত্রা কিছুটা কমলেও বুধবার থেকে পুনরায় তা উল্লেখযোগ্য হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। এমনকি দূষণের জেরে ফের দিল্লির বাতাসের গুণমান পৌঁছেছে ‘অতি খারাপ’ বিভাগে। 

জানা যাচ্ছে, দূষণের জেরে রাজধানী এবং তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলগুলিতে চলা লকডাউনের কারণে রবিবারের আগে পর্যন্ত দিল্লির বাতাসের গুণমান বেশ কিছুটা ভালোর দিকে ছিল। লকডাউনের আগে বাতাসে দূষণের মাত্রা যেখানে ৪৭০ এ পৌঁছেছিল, গত সপ্তাহের শেষের দিকে সেটাই কমে ২৮০ হয়েছিল। ফলত আবহাওয়াবিদরা কিছুটা আশার আলো দেখেছিলেন। কিন্তু রবিবারের পর থেকে ফের দিল্লিতে দূষণের মাত্রা বাড়তে থাকে এবং বৃহস্পতিবার সেটাই ফের বেড়ে ৩৩০ এ পৌঁছেছে। 

এই প্রসঙ্গে বায়ুর গুণমান এবং আবহাওয়ার পূর্বাভাস এবং গবেষণার ব্যবস্থা (SAFAR)-এর তরফ থেকে বুলেটিন জারি করে জানানো হয়েছে, ‘বৃহস্পতিবার সকালে দিল্লির এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স তথা বাতাদের গুণগত মান পুনরায় ‘অতি খারাপ’ বিভাগে পৌঁছেছে। বাতাসে আপেক্ষিক আদ্রতা বেশী থাকার কারণে আগামী দুদিন বাতাসে দূষণের পরিমাণ একইরকমভাবে বেশী থাকবে।’

এদিকে দিল্লি দূষণের মাত্রা এখনও একইরকমভাবে বিপদজনক পর্যায়ে অবস্থান করার কারণে আপাতত রাজধানীতে নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তেই অটল থাকল সুপ্রিম কোর্ট। বুধবার দিল্লির দূষণ নিয়ে একটি মামলার শুনানি ছিল সুপ্রিম কোর্টে। আর সেই শুনানি চলাকালীন ফের সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির কাছে ভৎসিত হয় দিল্লি সরকার। দিল্লিত দূষণ প্রসঙ্গে এদিনও সুপ্রিম কোর্টের তরফ থেকে করা ভাষায় বলা হয়, ‘দেখুন আমরা সমগ্র বিশ্বের কাছে কি নজির রাখছি।’ 

More News:

Leave a Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

নজরকাড়া খবর

জেলা ভিত্তিক সংবাদ

Subscribe to our Newsletter

86
মিশন দিল্লি, পিকের চাণক্যনীতি কতটা কাজ দিল মমতার?