এই মুহূর্তে

‘কেশাগ্রও ছুঁতে পারবে না’, ভিডিও বার্তায় পুলিশকে চ্যালেঞ্জ অমৃতপালের

নিজস্ব প্রতিনিধি, চণ্ডীগড়: তাঁকে ধরতে গত ১২ দিন ধরে আদাজল খেয়ে নেমেছে পঞ্জাব পুলিশ। আর পুলিশের চোখে ধুলো দিয়ে এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় ছুটে বেড়াচ্ছেন ‘দ্বিতীয় ভিন্দ্রানেওয়ালে’ তথা ‘ওয়ারিশ পঞ্জাব দে’ প্রধান অমৃতপাল সিং। বুধবার গোপন আস্তানায় থেকেই নিজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এক ভিডিও আপলোড করেছেন পলাতক ধর্মীয় নেতা। ওই ভিডিও বার্তায় পুলিশকে খুল্লামখুল্লা চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে তিনি বলেছেন, ‘অকারণে ছোটাছুটি করছেন। আমার কেশ্রাগও স্পর্শ করতে পারবেন না।’ ইতিমধ্যেই সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে অমৃতপালের ওই ভিডিও।

গত ১৮ মার্চ খলিস্তানি রাষ্ট্রের নয়া প্রবক্তা তথা ‘ওয়ারিশ পঞ্জাব দে’র প্রধান অমৃতপালকে গ্রেফতারের জন্য বিশেষ অভিযান শুরু করেছিল পঞ্জাব পুলিশ। প্রথমে বিভিন্ন জাতীয় সংবাদমাধ্যমে খবর সম্প্রচারিত হয়েছিল, জলন্ধরের এক গোপন আস্তানা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে স্বঘোষিত ধর্মীয় গুরুকে। কিন্তু পরে জানা যায়, ওই খবরের কোনও ভিত্তি নেই। গত ১২ দিন ‘দ্বিতীয় ভিন্দ্রানেওয়ালা’কে ধরতে দিন রাত এক করে দিয়েছে। মঙ্গলবার রাতেই পুলিশের কাছে খবর পৌঁছেছিল হোশিয়ারপুরে গা ঢাকা দিয়ে রয়েছেন ‘ওয়ারিশ পঞ্জাব দে’র প্রধান। বিশাল পুলিশ বাহিনী গিয়ে হোশিয়ারপুরের একটি গ্রামের প্রতি বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছিল। কিন্তু অমৃতপালের খোঁজ পায়নি।

তার মধ্যেই পলাতক ধর্মগুরুর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের অ্যাকাউন্টে একটি ভিডিয়ো বার্তা আপলোড করা হয়েছে। ওই ভিডিওতে ভারত ও বিদেশে থাকা শিখদের প্রতি অত্যাচারের প্রতিবাদে সম্প্রদায়ের প্রতিটি মানুষকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন অমৃতপাল। তার সঙ্গে যে ওয়াহে গুরু রয়েছেন সেই দাবি করে দ্বিতীয় ভিন্দ্রানেওয়ালা বলেছেন, ‘পুলিশ আমার কেশাগ্রও স্পর্শ করতে পারবে না। ওয়াহে গুরুই আমাকে পুলিশের হাত থেকে রক্ষা করে চলেছেন।’ সূত্রের খবর, ব্রিটেন থেকেই অমৃতপালের ভিডিও আপলোড করা হয়েছে।  

 

Published by:

Sundeep

Share Link:

More Releted News:

আচমকাই শিন্ডে-ফড়নবিশদের মধ্যাহ্নভোজে আমন্ত্রণ পওয়ারের, শোরগোল মরাঠা ভূমে

রাজ্যসভায় সংখ্যাগরিষ্ঠতা থেকে ৩ আসন দূরে NDA

হিমাচলের মুখ্যমন্ত্রী পদে থাকছেন সুখুই, জানালেন কংগ্রেসের বিশেষ দূত শিবকুমার

আদালতের অনুমতি না নিয়ে রাম রহিমকে প্যারোলে মুক্তি নয়, নির্দেশ পঞ্জাব-হরিয়ানা হাইকোর্টের

‘দুঃখিত, ক্ষমা করে দিও’, বাবাকে শেষ চিঠিতে লিখল আত্মঘাতী পড়ুয়া

কানপুরে গাছ থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার ২ কিশোরীর দেহ, ধর্ষণের অভিযোগ পরিবারের

Advertisement

এক ঝলকে
Advertisement

জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর