‘স্বামী বিবেকানন্দ, ঋষি অরবিন্দকেও বদনাম করার চেষ্টা হবে’, সতর্ক করলেন ভাগবত

Published by:
No Author

12th October 2021 8:41 pm

নিজস্ব প্রতিনিধি, নয়াদিল্লি: পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা ভোটে গেরুয়া শিবির মুখ থুবড়ে পড়লেও বাঙালি তাস খেলার বিরাম নেই সঙ্ঘ নেতাদের। মঙ্গলবার এক অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘের সরসঙ্ঘচালক মোহন ভাগবত বাঙালির আবেগে সুড়সুড়ি দিতে গিয়ে বলেছেন, ‘স্বাধীনতার পর থেকেই বীর সাভারকারের বদনাম করা হচ্ছে। আগামী দিনে স্বামী বিবেকানন্দ, দয়ানন্দ সরস্বতী ও ঋষি অরবিন্দদেরও বিশেষভাবে টার্গেট করা হবে। তাঁদের নামেও কু‍ৎসা রটানো হবে।’ বাঙালি আবেগে সুড়সুড়ি দিতে গিয়ে স্বামী বিবেকানন্দ ও ঋষি অরবিন্দের নাম উল্লেখ করেও তাঁদের সঙ্গে একই পংক্তিতে বসিয়েছেন সাভারকারকে। আর তা নিয়েই বিতর্ক দানা বাঁধতে শুরু করেছে।

এদিন সঙ্ঘের অন্যতম প্রাণপুরুষ বীর সাভারকারের উপরে প্রণীত এক বইয়ের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সরসঙ্ঘচালক মোহন ভাগবত ক্ষোভপ্রকাশ করে বলেন, ‘দেশ স্বাধীনের পর থেকেই বীর সাভারকারকে টার্গেট করে একশ্রেণির নেতা কু‍ৎসা রটিয়ে চলেছেন। বীর সাভারকার সম্পর্কে সাধারণ মানুষের জ্ঞানের পরিধি অত্যন্ত সীমিত। আর সেই সুযোগ কাজে লাগাচ্ছেন নিন্দুকেরা। আজ সময় এসেছে বীর সাভারকার সম্পর্কে সঠিক তথ্য জানার।’  

২০১৪ সালে কেন্দ্রে ক্ষমতার পালাবদলের পরে দেশে যে হিন্দুত্বের সুদিন এসেছে তাও এদিন স্বীকার করেছেন সঙ্ঘ প্রধান। সেই সঙ্গে আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে তিনি ঘোষণা করেছেন, ‘দেশে সাভারকারের যুগ আসছে।’ দেশভাগের সময়ে যদি হিন্দুত্বের ডঙ্কা পেটানো যেত, তাহলে ভারত বিভাজিত হত না বলেও এদিন অভিমত ব্যক্ত করেছেন ভাগবত। হিন্দুত্বের আলাদা-আলাদা কোনও ব্যাখ্যা হতে পারেনা বলেও এদিন স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন সঙ্ঘ প্রধান। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘সাভারকারের হিন্দুত্ব, বিবেকানন্দের হিন্দুত্বের কথা বলা আজ ফ্যাশন হয়ে দাঁড়িয়েছে। হিন্দুত্ব একটাই। যা আগেও ছিল, ভবিষ্যতেও থাকবে।’

এদিনের বই প্রকাশ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং-ও।

Rupangi

More News:

Leave a Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

নজরকাড়া খবর

Manjusha Advertisement

জেলা ভিত্তিক সংবাদ

Subscribe to our Newsletter

45
মিশন দিল্লি, পিকের চাণক্যনীতি কতটা কাজ দিল মমতার?