Comm Ad 2020-LDC Haringhata Meet

করোনার কালবেলায় এ বছর ঢাকায় হচ্ছে না কুমারী পুজো

Share Link:

করোনার কালবেলায় এ বছর ঢাকায় হচ্ছে না কুমারী পুজো

ফাইল চিত্র।

নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা: আনন্দের মাঝেও কাঁটা হয়ে বিঁধছে আশঙ্কা। এক অদৃশ্য ভাইরাস মানুষের জীবনকে চরম অনিশ্চয়তার পথে ঠেলে দিয়েছে। তাই করোনার কলবেলায় দুর্গাপুজোর মহাষ্টমীর দিনে ঢাকার  কোথাও কুমারী পুজো হবে না। সেই সঙ্গে পুজোর পাঁচদিনেই দর্শনার্থীদের জন্য রাত নয়টাতেই বন্ধ হয়ে যাবে পুজোমণ্ডপের দরজা। তবে বিজয়া দশমীর দিনে মাকে বরণ করে হিন্দু মহিলারা যে সিঁদূর খেলায় মেতে ওঠেন, তা চালু রাখা হবে কিনা, তা নিয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত হয়নি।

বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি মিলনকান্তি দত্ত সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ঢাকা শহরে অষ্টমীর দিনে রামকৃষ্ণ মিশনে যে কুমারী পুজো হত, তা চলতি বছরে করোনার কারভণে বন্ধ রাখা হচ্ছে। তবে ঢাকার বাইরে দু-এক জায়গায় কুমারী পুজো হতে পারে। করোনার করাল থাবায় গত বছরের তুলনায় চলতি বছরে সারা দেশে ১ হাজার ১৮৫টি পুজো কম হচ্ছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে পুজো আয়োজন করতে গিয়ে অনেক উদ্যোক্তারাই চরম অসুবিধায় পড়েছেন।

করোনার সংক্রমণ রুখতে ইতিমধ্যেই পুজো কমিটিগুলিকে পুজো উদযাপন পরিষদের পক্ষ থেকে ২৬ দফা নির্দেশিকা পাঠানো হয়েছে। ওই নির্দেশিকায় বিসর্জনের ক্ষেত্রে শোভাযাত্রা না করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ডিজিটাল বা ভার্চুয়াল অঞ্জলির ব্যবস্থা করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে পুজো কমিটিগুলিকে। তবে যে সব জায়গায় সশরীরে অঞ্জলির ব্যবস্থা করা হচ্ছে, সেখানে যাতে ২৫ থেকে সর্বাধিক ৫০ জনের বেশি একত্রে জড়ো না হন, সে দিকেও উদ্যোক্তাদের নজর দিতে বলা হয়েছে। সন্ধ্যসা আরতির পরে রাত নয়টার মধ্যে পুজোমণ্ডপ বন্ধ করে দিতে বলা হয়েছে।
পুজো উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নির্মল কুমার চট্টোপাধ্যায় হিন্দুদের প্রধান উ‍ৎসব দুর্গাপুজো উপলক্ষে তিনদিনের সরকারি ছুটি গোষণা করার জন্য বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ফের আর্জি জানিয়েছেন। পাশাপাশি হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের পরিবর্তে হিন্দু ফাউন্ডেশন গঠনের দাবি জানিয়েছেন।

Comm Ad 2020-WB Tourism body

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

Comm Ad 2020-LDC Egg

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

Comm Ad 2020-LDC Momo

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

Voting Poll (Ratio)

Comm Ad 006 TBS

Editors Choice

Comm Ad 2020-LDC Egg