এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




উপনির্বাচনের ‘টিপস’ নিতে মদন মিত্রের বাড়িতে সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়




নিজস্ব প্রতিনিধি: দরজায় কড়া নাড়ছে লোকসভা নির্বাচন। গোটা দেশের রাজনীতি এখন লোকসভা নির্বাচন নিয়েই সরগরম। তবে এবার লোকসভা নির্বাচন সকল রাজনৈতিক দলের একমাত্র হাতিয়ার তারকা প্রার্থীরা। তবে শুধু লোকসভা নির্বাচন নয়, কিছু কিছু জায়গায় বিধানসভার উপ নির্বাচনও রয়েছে। কলকাতাও ব্যতিক্রম নয়। যাই হোক, গত ১০ মার্চ রাজ্যের শাসক দল লোকসভা নির্বাচনে তাঁদের প্রার্থী তালিকার নাম ঘোষণা করেছে। যেখানে ছিল না প্রত্যাশিত অনেকের নাম আবার নতুন অনেকের নাম যুক্ত হয়েছে তালিকায়। কিন্ত ৩ বছর আশা করে থাকলেও লোকসভা নির্বাচনের তৃণমূলের হয়ে টিকিট পাননি টলিউড অভিনেত্রী সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়। বাঁকুড়া কেন্দ্র থেকে তাঁর দাঁড়ানোর কথা ছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে পাশা পাল্টে যায়।

গুজব উঠেছিল টিকিট না পাওয়ায় সায়ন্তিকা TMC দল ছাড়ছেন। ভাইরাল হয়েছিল অভিনেত্রীর একটি ইস্তফপত্রও। কিন্তু বিষয়টি অভিনেত্রীর কান পর্যন্ত পৌঁছলে তিনি নিজেই জানান, লোকসভা নির্বাচনের টিকিট পাননি ঠিকই, তাতে একটু অভিমান আছে তাঁর! কিন্তু মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ছাড়ার প্রশ্নই ওঠে না। কিন্তু কথায় আছে না, সবুরে ফল মিঠা হোতা হ্যায়! হ্যাঁ, লোকসভা নির্বাচনের টিকিট পাননি তো কী হয়েছে, তৃণমূলের হয়ে দিন কয়েক আগেই বরাহনগর বিধানসভা উপ নির্বাচনের টিকিট পেয়েছেন সায়ন্তিকা। শুরু করেছেন প্রচারপর্বও। আগামী ১ জুন উত্তর কলকাতায় ভোটের দিন একইসঙ্গে বরানগরের উপনির্বাচনে ভোট হবে। রাজ্যের দুটি বিধানসভা আসনে ভোট হবে। আর তার জন্য প্রতিদিনই প্রচারে বেরিয়ে পড়ছেন বরানগরের তৃণমূল প্রার্থী সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে প্রার্থী হওয়া তাঁর কাছে নতুন নয়! এর আগে বাঁকুড়া বিধানসভা কেন্দ্রে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। কিন্তু সেখানে হেরে যান।

সেই প্রেক্ষিতে বরানগর (Baranagar) একেবারেই অচেনা মাটি। তাই এখানকার দলীয় সংগঠনের সঙ্গেই প্রচার করছেন তিনি। তাই রাজনীতিক গুরুজনদের থেকে নানারকম টিপসও দরকার হচ্ছে তাঁর। সূত্রের খবর, সোমবার সন্ধেবেলা সায়ন্তিকা পৌঁছে গিয়েছিলেন দক্ষিণেশ্বরে, কামারহাটির বিধায়ক তথা এলাকার জনপ্রিয় নেতা মদন মিত্রর (Madan Mitra) বাড়িতে। তবে ভোটের আগে ‘টিপস’ নিতে নয়, বরং মদন মিত্রকে দেখতে গিয়েছিলেন অভিনেত্রী। কারণ তিনি বেশ কিছুদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন। এক কাজে দু কাজ হল আর কি, এদিন প্রবীণ রাজনীতিকের আশীর্বাদও নিয়েছেন সায়ন্তিকা। সঙ্গে দক্ষিণেশ্বরে (Dakshineswar) পুজোও দিয়েছেন। মদন মিত্র অনেকদিন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। তার পর তাঁকে ছাড়া হলেও চিকিৎসকরা বিশ্রামে থাকার পরামর্শ দিয়েছেন। আর ওই এলাকা মদন মিত্রের নখদর্পণে, তাই কিছুটা টিপসও যে পেয়েছেন নায়িকা, টা বলাই বাহুল্য!




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

মায়ের মৃতদেহের সামনে মেয়ের বিয়ে,শ্মশানেই সিঁদুর দান ও মালা বদল

পুলকারে দুর্ঘটনা রুখতে এক গুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করতে চলেছে রাজ্য

সুস্থ সন্ধ্যা রায়, ছ’দিন পর হাসপাতাল থেকে হাসিমুখে বাড়ি ফিরলেন বর্ষীয়ান অভিনেত্রী

দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে বর্ষা প্রবেশ করল, চলবে বৃষ্টি

গুজরাত হাইকোর্টের আদেশের পরেই ওটিটিতে মুক্তি পেল আমির পুত্রের ‘মহারাজ’

ব্যবসায়ীর বাড়িতে রাতের অন্ধকারে দুঃসাহসিক চুরি, গোবরডাঙাতে চাঞ্চল্য

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর