Comm Ad 018 Kalna

‘বিজেপি বান্ধব’ আনন্দ শর্মার মুখে ঝামা ঘষে দিলেন অধীর

Share Link:

‘বিজেপি বান্ধব’ আনন্দ শর্মার মুখে ঝামা ঘষে দিলেন অধীর

নিজস্ব প্রতিনিধি, নয়াদিল্লি: একেই বলে শঠে শাঠ্যং। সোমবারই আব্বাস সিদ্দিকীর ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের সঙ্গে দলের জোট নিয়ে ক্ষোভ উগরে দিয়ে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বকে খুশি করার রাস্তায় হেঁটেছিলেন বাগী কংগ্রেস নেতা আনন্দ শর্মা। মঙ্গলবার ‘বিজেপি বান্ধব’ দলীয় নেতাকে পাল্টা কটাক্ষ করে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী বলেছেন, ‘হয়তো অন্য কোনও দল থেকে (পড়ুন বিজেপি) রাজ্যসভার টিকিট পেতে পারেন। সেই কারণেই উনি এমন কথা বলছেন।’

গত কয়েক মাস ধরেই বিজেপির সঙ্গে গোপন যোগাযোগ রেখে চলার অভিযোগ উঠেছে যে কংগ্রেস নেতাদের বিরুদ্ধে তার মধ্যে অন্যতম হলেন আনন্দ শর্মা। বরাবরই গান্ধি পরিবারের কট্টর বিরোধী হিসেবে যেমন পরিচিত তেমনই বাঙালি বিদ্বেষী হিসেবেও সমধিক পরিচিত। লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা হিসেবে অধীর চৌধুরীর মনোনয়নকে মেনে নিতে পারেননি তিনি। গুলাম নবি আজাদ-কপিল সিব্বলদের সঙ্গে ঘোঁট পাকিয়ে বাঙালি অধীরকে চরম অপদস্থ করার কাজে নেমে পড়েছেন বলে দীর্ঘদিন ধরেই অভিযোগ। 

সোমবার গাঁয়ে মানে না আপনি মোড়লের মতোই বাংলার ভোটে কংগ্রেস-বাম-আইএসএফের জোট নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন ‘বিজেপি বান্ধব’ নেতা। নিজের টুইটারে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরীকে খোঁচা দিয়ে তিনি লেখেন, ‘আইএসএফ-এর মতো শক্তির সঙ্গে কংগ্রেসের হাত মেলানো দলের ধর্মনিরপেক্ষতার ভাবনার সঙ্গে মেলে না। ওই মঞ্চে বাংলার প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির উপস্থিতি ও সমর্থন বেদনাদায়ক ও লজ্জাজনক! তাঁর অবস্থান স্পষ্ট করা উচিত’।

রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, ‘রাজ্যে বাম-কংগ্রেসের জোট বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। নবান্ন দখলের যে স্বপ্ন দেখছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি-কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহরা, সেই স্বপ্নের পথে কাঁটা হয়ে দাঁড়াতে পারে নয়া জোট এমন আশঙ্কা থাকছে। আর সেই আশঙ্কার জেরেই বাম-কংগ্রেস-আইএসএফ জোটের বিরোধিতায় সরব হয়েছিলেন বিজেপির দিকে পা বাড়ানো কংগ্রেস নেতা আনন্দ শর্মা। ছেঁদো ধর্মনিরপেক্ষতার বুলি আওড়ে দলের ভাবমূর্তি কলঙ্কিত করার ন্যক্কারজনক ষড়যন্ত্রে নেমেছেন আনন্দ শর্মা। যাতে তাঁর হঠকারী মন্তব্যকে হাতিয়ার করে কংগ্রেসকে আক্রমণের সুযোগ পায় বিজেপি।’

ধর্মীয় বিভাজনের রাজনীতিতে যে দল বিশ্বাসী সেই বিজেপির নয়া বান্ধব হিসেবে আবির্ভূত হওয়া সতীর্থকে আনন্দ শর্মাকে মঙ্গলবার খোঁচা দিয়ে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বলেছেন, ‘যিনি এই মন্তব্য করেছেন তিনি কী করে ধারণা করলেন, সীতারাম ইয়েচুরি, ডি রাজা, বিমান বসুরা সবাই ‘মৌলবাদী শক্তি’র হাত ধরলেন?’ দলের শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে কথা বলেই যে বাংলায় জোটের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে তা উল্লেখ করে অধীর বলেন, ‘দল কী ভাবে চলবে, তা কোনও ব্যক্তির বিষয় নয়। এআইসিসি-র সঙ্গে কথা বলে প্রদেশ কংগ্রেস পথ ঠিক করে। বাংলায় আমরা সেটাই করছি।’

Comm Ad 2020-WB Tourism body

More News:

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

2020 New Ad HDFC 05

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

2020 New Ad HDFC 05

স্বামী করণ সিং গ্রুভারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর ছবি পোস্ট করেছেন বিপাশা

স্বামী করণ সিং গ্রুভারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর ছবি পোস্ট করেছেন বিপাশা

বিকিনিতে নিজের অনুরাগীদের মনে উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন বিপাশা বসু

বিকিনিতে নিজের অনুরাগীদের মনে উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন বিপাশা বসু

মলদ্বীপে খোশমেজাজে রয়েছেন বিপাশা

মলদ্বীপে খোশমেজাজে রয়েছেন বিপাশা

বিপাশার বিকিনি পরা ছবি দেখে বলাই যায় বয়স সংখ্যামাত্র

বিপাশার বিকিনি পরা ছবি দেখে বলাই যায় বয়স সংখ্যামাত্র

হাতে কাজ না থাকায় দাম্পত্য জীবন উপভোগ করছেন বঙ্গতনয়া

হাতে কাজ না থাকায় দাম্পত্য জীবন উপভোগ করছেন বঙ্গতনয়া

সরকারের হাত ধরে সল্টলেকের বুকে চালু হয়েছে প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র। যেখানে মিলবে পোষ্যদের চিকিৎসা পরিষেবা।

সরকারের হাত ধরে সল্টলেকের বুকে চালু হয়েছে প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র। যেখানে মিলবে পোষ্যদের চিকিৎসা পরিষেবা।

সল্টলেকের প্রাণী সম্পদ বিকাশ ভবন প্রাঙ্গণেই এই নতুন প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রের এদিন উদ্বোধন করেছেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ।

সল্টলেকের প্রাণী সম্পদ বিকাশ ভবন প্রাঙ্গণেই এই নতুন প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রের এদিন উদ্বোধন করেছেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ।

এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ ও স্থানীয় বিধায়ক তথা রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু।

এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ ও স্থানীয় বিধায়ক তথা রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু।

এই পশু স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মিলবে ইসিজি, আল্ট্রাসোনোগ্রাফি, রক্ত সিরামের বিভিন্ন পরীক্ষা, পরজীবী সংক্রমণ সংক্রান্ত খুঁটিনাটি বিশ্লেষণ, আধুনিক শল্য চিকিৎসার যাবতীয় সুযোগসুবিধা।

এই পশু স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মিলবে ইসিজি, আল্ট্রাসোনোগ্রাফি, রক্ত সিরামের বিভিন্ন পরীক্ষা, পরজীবী সংক্রমণ সংক্রান্ত খুঁটিনাটি বিশ্লেষণ, আধুনিক শল্য চিকিৎসার যাবতীয় সুযোগসুবিধা।

 আগামী দিনে এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রে মিলবে পোষ্যদের চোখ, কান ও দাঁতের পরীক্ষা পরিষেবাও।

আগামী দিনে এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রে মিলবে পোষ্যদের চোখ, কান ও দাঁতের পরীক্ষা পরিষেবাও।

প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যায়ে এই নবনির্মিত পশু চিকিৎসালয় তৈরি করা হয়েছে।

প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যায়ে এই নবনির্মিত পশু চিকিৎসালয় তৈরি করা হয়েছে।

সারা রাজ্যে প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের অধীনে ১০৪টি রাজ্য প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র, ৮টি পলিক্লিনিক, ৩৪২টি ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ২৭২টি অতিরিক্ত ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্য কেন্দ্র চালু থাকলো বাংলার বুকে।

সারা রাজ্যে প্রাণী সম্পদ বিকাশ দফতরের অধীনে ১০৪টি রাজ্য প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র, ৮টি পলিক্লিনিক, ৩৪২টি ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ২৭২টি অতিরিক্ত ব্লক প্রাণী স্বাস্থ্য কেন্দ্র চালু থাকলো বাংলার বুকে।

সল্টলেক ও আশেপাশের এলাকার বাসিন্দাদের কাছে বিশেষ করে যাদের বাড়িতে ছোট পোষ্য থাকে তাঁদের ক্ষেত্রে অনেকটাই সমস্যার সমাধান হয়ে যেতে চলেছে এই নবনির্মীত প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি।

সল্টলেক ও আশেপাশের এলাকার বাসিন্দাদের কাছে বিশেষ করে যাদের বাড়িতে ছোট পোষ্য থাকে তাঁদের ক্ষেত্রে অনেকটাই সমস্যার সমাধান হয়ে যেতে চলেছে এই নবনির্মীত প্রাণী স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি।

পূর্বস্থলি দক্ষিণ বিধানসভার কালনা ১ নং ব্লকের, বেগপুর অঞ্চলের পাথর ডাঙ্গায় সংখ্যালঘু দপ্তরের বরাদ্দ ১৫,১৯,০০০ টাকায় নির্মিত জল প্রকল্প উদ্বোধনে মন্ত্রী

পূর্বস্থলি দক্ষিণ বিধানসভার কালনা ১ নং ব্লকের, বেগপুর অঞ্চলের পাথর ডাঙ্গায় সংখ্যালঘু দপ্তরের বরাদ্দ ১৫,১৯,০০০ টাকায় নির্মিত জল প্রকল্প উদ্বোধনে মন্ত্রী

এই বিশেষ প্রকল্পের উদ্বোধনে হাজির ছিলেন রাজ্যের প্রাণীসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ

এই বিশেষ প্রকল্পের উদ্বোধনে হাজির ছিলেন রাজ্যের প্রাণীসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ

এই বিশেষ জল প্রকল্পের ফলে উপকৃত হবেন এলাকাবাসী

এই বিশেষ জল প্রকল্পের ফলে উপকৃত হবেন এলাকাবাসী

Voting Poll (Ratio)

Comm Ad 2020-LDC Egg
Comm Ad 2020-WB Tourism RC