Comm AD 12 Myra

​ন্যূনতম সহায়ক মূল্য দিতে সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ! কৃষি বিলের পক্ষে সওয়াল প্রধানমন্ত্রীর

Share Link:

​ন্যূনতম সহায়ক মূল্য দিতে সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ! কৃষি বিলের পক্ষে সওয়াল প্রধানমন্ত্রীর

নিজস্ব প্রতিনিধি: দেশের একাধিক প্রান্তে নয়া কৃষি বিল নিয়ে প্রতিবাদ এখনও অব্যাহত। যদিও এই প্রতিবাদকে সেভাবে আমল দিতে নারাজ মোদি সরকার। বলা বাহুল্য, সাধারণ মানুষের স্বার্থের কথা বিন্দুমাত্র বিবেচনা না করেই কৃষি বিলটি আইনে পরিণত করে কেন্দ্র সরকার। কিন্তু এরফলে জনবিরোধী দলে পরিণত হয়ে গিয়েছে বিজেপি। সেই কারণে এবার জনসাধারণ মগজধোলাই করতে ময়দানে নেমে পড়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। কৃষি বিলে নুন্যতম সহায়ক মূল্যের কথা উল্লেখ না থাকলেও সাধারণ মানুষকে এই নিয়ে আশ্বস্ত করছেন তিনি।

শুক্রবার বিশ্ব খাদ্য দিবসে তিনি জানান, সরকার কৃষিক্ষেত্রে ন্যূনতম সহায়তা মূল্য (এমএসপি) দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এমনকি তিনি এটিকে দেশের খাদ্য সুরক্ষার একটি গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ হিসাবেও দাবি করেছেন। মাণ্ডিগুলিকে আরও কাঠামোগতভাবে উন্নত করার চেষ্টা চলছে, যাতে কৃষকরা বৈজ্ঞানিক উপায়ে নূন্যতম সহায়ক মূল্য পায়। কেন্দ্র সরকার সর্বদা চাষিদের কথাই ভেবে এসেছে।

যদিও এদিন বিরোধী দলগুলির উদ্দেশ্যে মোদি কোনও মন্তব্য করেননি। তবে এর আগে তিনি যতবার কৃষি বিলের পক্ষে সওয়াল করেছেন ততবারই তিনি বিরোধী শিবিরকে তীর্যক ভাষায় আক্রমণ করেছেন। তবে এই বিলের মাধ্যমে প্রথমবার জোটসঙ্গীদের সঙ্গে মতপার্থক্য হয় বিজেপি। একাধিক ছোট দল জোট ছেড়ে বেরিয়ে আসে। গত সেপ্টেম্বরে যখন এই বিল লোকসভায় পেশ হয় তখনই বিজেপির নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট ছেড়ে বেরিয়ে এসেছিল পঞ্জাবে অকালি দল। কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর পদ ছেড়েছেন হরসিমরত কউর বাদল। 

এই মন্ত্রীত্ব ছাড়ার এক সপ্তাহের মধ্যেই এবার বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করার সিদ্ধান্ত দলের সুপ্রিমো সুখবীর সিং বাদলের। অকালির এই সিদ্ধান্ত বিজেপির জন্য খুব একটা সুখকর নয়। বিজেপির একেবারে জন্মলগ্ন থেকে অর্থাৎ যখন সংসদে বিজেপির সাংসদ সংখ্যা ২, তখন থেকেই বিজেপির সঙ্গে ছিল এই অকালি দল। বহু উত্থান-পতনের সঙ্গী এই দল।

Comm Ad 2020-tantuja-body

More News:

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

corona 02

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

2020 New Ad HDFC 05

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

Voting Poll (Ratio)

Comm Ad 2020-LDC Egg

Editors Choice

corona 02