Comm Ad 2020-LDC Haringhata Meet

আলুওয়ালিয়া নিখোঁজ কাণ্ডে অস্বস্তি এবার বাড়ছে বিজেপিরই অন্দরে

Share Link:

আলুওয়ালিয়া নিখোঁজ কাণ্ডে অস্বস্তি এবার বাড়ছে বিজেপিরই অন্দরে

নিজস্ব প্রতিনিধি: ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে বাংলা থেকে ১৮জন সাংসদ পেয়েছে বিজেপি। সেই ফলফলের জেরেই এবার গেরুয়া শিবিরের নেতারা তাল ঠুকছেন রাজ্যের ক্ষমতা দখল করার। কিন্তু সেই পথের কাঁটা হয়ে উঠেছেন দলেরই সাংসদ। কারন তাঁর হুটহাট নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার ঘটনা। এলাকার মানুষ তাঁকে দেখতে পান না, খুঁজেও পান না। প্রয়োজনে আপদে বিপদেও তাঁর পাগড়ির দেখা মেলে না। যখন দার্জিলিংয়ের সাংসদ ছিলেন তখনও তিনি নিখোঁজ হয়েছিলেন, এবারে বর্ধমান-দূর্গাপুরের সাংসদ হয়েও নিখোঁজ হয়ে গিয়েছেন। একই সাংসদের বিরুদ্ধে যদি বার বার এভাবে গা ঢাকা দেওয়ার অভিযোগ ওঠে তাহলে কোন দলের না তাতে অস্বস্তি তৈরি হবে। রাজ্য বিজেপির অন্দরেও এখন সেটাই হচ্ছে এস এস আলুওয়ালিয়াকে নিয়ে। তার জেরে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে দলেরও অন্দরে।
 
দার্জিলিংয়ের সাংসদ থাকাকালীন সময়ে আলুওয়ালিয়ার দেখা কদাচিৎ পাওয়া যেত। পাহাড়ে টানা বনধ চলাকালীন সময়েও তাঁকে পাশে পাননি এলাকার মানুষজন। পাহাড় থেকে যে তিনি আর জিততে পারবেন না সেটা বুঝেই বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতারা তাঁকে নামিয়ে আনেন সমতলে। টিকিট দেন বর্ধমান-দূর্গাপুর আসনে। ২০১৯ সালের নির্বাচনের আগেই দলের সমীক্ষায় এই আসনটি বেশ সম্ভাবনাময় আসন হিসাবে উঠে এসেছিল। কারন এই লোকসভা কেন্দ্রের মধ্যে থাকা কয়েক লক্ষ কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারী। একই সঙ্গে এই এলাকা আগে ছিল বামেদের গড়। বামজমানার পরে সেই বামভোট পুরোপুরি দখল নিতে পারেনি রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল। এখনও দুর্গাপুর-আসানসোল এলাকা তৃণমূলের খুব একটা স্বস্তির জায়গা নয়। সেখানে দাঁড়িয়ে গেরুয়া শিবিরের বেশ সম্ভাবনা ছিল ওই এলাকায় আধিপত্য বিস্তার করা। কিন্তু যাকে সামনে রেখে সেই আধিপত্য বিস্তারে হাঁটা দেবে দল সেই সাংসদই কিনা নিরুদ্দেশ। দার্জিলিংয়ের সাংসদ থাকার সময় মোর্চার তরফ থেকে থানায় আলুওয়ালিয়ার নিরুদ্দেশ সংক্রান্ত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল। গতকাল সেই একই অভিযোগ দূর্গাপুরে দায়ের করেছে তৃণমূল কর্মীরা। স্বাভাবিক ভাবেই এখন আলুওয়ালিয়াকে ঘিরে ক্ষোভ চড়ছে বিজেপির অন্দরেও।

Comm Ad 005 TBS

More News:

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

Comm Ad 008 Myra

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

Comm Ad 2020-himalaya RC

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

খিদিরপুর থেকে শুরু করে বেহালা, হরিদেবপুর,

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

মুদিয়ালী ছুঁয়ে সোধপুর পার্ক

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

বাবুবাগান হয়ে উদ্বোধনের যাত্রা শেষ হল একডালিয়া,

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

হিন্দুস্থান পার্ক, ত্রিধারার চত্বরে এসে।

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

#

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এক আধটা নয়, পুরো ১১০টি পুজোর উদ্বোধন একঘন্টার মধ্যেই সেরে ফেলে রেকর্ড গড়ে দিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

নবান্ন থেকে ভার্চুয়ালি ভাবে রাজ্যের ১২টি জেলার এই ১১০টি পুজোর উদ্বোধন এদিন করে দিলেন তিনি।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

কখনও দূর্গাস্তোত্র পড়ে, কখনও শাঁখ বাজিয়ে, কখনও বা কাঁসর বাজিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে এদিন দেখা গেল একের পর এক জেলায় পুজোর উদ্বোধন করতে।

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

একই সঙ্গে নাম না করেই মাঝে মধ্যে গেরুয়া শিবিরকে খোঁচা দিয়ে তাঁকে মা দুর্গার কাছে প্রার্থনা করতে দেখা গেল যে মা যেন বাংলাকে দাঙ্গা থেকে বাঁচান

Voting Poll (Ratio)

Comm Ad 2020-WB Tourism RC

Editors Choice

2020 New Ad HDFC 05