এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




লক্ষ ভোটের ব্যবধানে হারলেন দিলীপ, উনিশে তিনিই ছিলেন হিরো

Courtesy - Google




নিজস্ব প্রতিনিধি: তিনি বঙ্গ বিজেপির(Bengal BJP) সব থেকে সফলতম সভাপতি। তাঁর আমলেই বাংলার মাটিতে বিজেপি সর্বোচ্চ উচ্চতায় পৌঁছেছে। উনিশের তাঁর হাত ধরেই বাংলার মাটিতে বিজেপি জিতেছিল ১৮টি আসন, থুড়ি লোকসভা কেন্দ্র। আর একুশের বিধানসভা নির্বাচনে পেয়েছিল ৭৭টি আসন। তারপরেও দল তাঁর কাছ থেকে কেড়ে নিয়েছিল দলীয় পদ, রাজ্য সভাপতির পদ। এবার দল তাঁর কাছ থেকে তাঁরই জেতা কেন্দ্রও কেড়ে নিয়েছিল। পরিবর্তে ভোটে লড়তে দল তাঁকে পাঠিয়েছিল অন্য কেন্দ্রে। আর তার নিট রেজাল্ট তিনি সেই নতুন ভোট ময়দানে হারলেন লক্ষ ভোটের ব্যবধানে। তিনি দিলীপ ঘোষ(Dilip Ghosh)। ভোট গণনার তথ্য বলছে বর্ধমান-দুর্গাপুর লোকসভা কেন্দ্রে(Burdwan Durgapur Constituency) দিলীপ ১ লক্ষেরও বেশি ভোটে হারলেন সেখানকার তৃণমূল প্রার্থী কীর্তি আজাদের(Kirti Azad) থেকে। অর্থাৎ উনিশের ভোটে বিজেপির দখলে যাওয়া বর্ধমান-দুর্গাপুর কেন্দ্রের দখল এবার নিজেদের হাতে তুলে নিচ্ছে তৃণমূল(TMC)।

দিলীপ উনিশের ভোটে মেদিনীপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকে জয়ী হয়েছিলেন ৮৮ হাজার ভোটের ব্যবধানে। কিন্তু এবারে দল তাঁকে আর সেই আসনের টিকিটই দেয়নি। মেদিনীপুরে বিজেপি দাঁড় করিয়েছে দলেরই বিধায়ক অগ্নিমিত্রা পালকে। আর দিলীপকে দল পাঠিয়ে দেয় বর্ধমান-দুর্গাপুর আসনে যেখানে দল উনিশে জিতেছিল। কিন্তু এদিন গণনার যা ট্রেন্ড ধরা পড়ছে, তাতে দেখা যাচ্ছে, দিলীপ ১ লক্ষেরও বেশি ভোটে হারছেন বর্ধমান-দুর্গাপুর লোকসভা কেন্দ্রে। আবার মেদিনীপুরেও পিছিয়ে আছেন অগ্নিমিত্রা। অর্থাৎ ইঙ্গিত আসছে, উনিশের ভোটে বিজেপির জেতা মেদিনীপুর ও বর্ধমান-দুর্গাপুর এই দুটি আসনই এবার হারাচ্ছে বিজেপি। দুটি কেন্দ্রেই জয়ী হতে চলেছে তৃণমূল। উনিশের ভোটে বাংলার মাটিতে বিজেপিকে ১৮টি লোকসভা কেন্দ্রে জিতিয়ে দিলীপই হয়ে উঠেছিলেন বাংলার পদ্মশিবিরের হিরো। আজ তিনিই হয়ে যাচ্ছেন জিরো। হাতের পাঁচ আঙুল সমান হয় না, দিলীপেরও কপালে জয় দীর্ঘস্থায়ী হল না। 




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

পুলিশের সচেতনতা অভিযানের মাঝেই যুবককে ছেলেধরা সন্দেহে গণধোলাই

টাইরড ভাঙা অবস্থায় যাত্রী নিয়ে দুর্গাপুর থেকে দৌড় সরকারি বাসের

সহ শিক্ষকের মারে আঙুল ভাঙল প্রধান শিক্ষকের, হুলুস্থুলকাণ্ড রানিগঞ্জের স্কুলে

‘আজই Gateman-কে Shoot করবো’, বন্দুক হাতে স্কুল দাপালো ছাত্র

মা ও শিশুপুত্রর রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার বীরভূমের নলহাটিতে

আমলাদের কাজের বার্ষিক মূল্যায়নের ওপরেও এবার থাকছে মুখ্যমন্ত্রীর নজরদারি

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর