এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine

‘মোদি জিতলে দেশে আর গণতন্ত্র থাকবে না’, আশঙ্কা প্রকাশ মমতার

Courtesy - Facebook and Google

নিজস্ব প্রতিনিধি: ইসলামপুরের পরে এবার বালুরঘাট। রামনবমীর ঠিক পরের দিন অর্থাৎ ১৮ এপ্রিল, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়(Mamata Banerjee) দুটি জনসভা করলেন। এদিনের প্রথম সভাটি ছিল উত্তরবঙ্গের উত্তর দিনাজপুর জেলার ইসলামপুরে। সেখানে তিনি রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী কৃষ্ণ কল্যাণীর সমর্থনে সভা করেন। মুখ্যমন্ত্রীর দ্বিতীয় সভাটি ছিল দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার হরিরামপুরে। সেখান তিনি বালুরঘাট লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী বিপ্লব মিত্রের সমর্থবনে সভা করেন। সেই সভা থেকেই তিনি দেশের গণতন্ত্র নিয়ে রীতিমত আশঙ্কা প্রকাশ করেন। তাঁর ভয়, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি(Narendra Modi) এবং তাঁর দল বিজেপি(BJP) এবার ভোটে(Loksabha Election 2024) জিতে ক্ষমতায় ফিরলে দেশে গণতন্ত্র(Democracy) বলে আর কিছু অবশিষ্ট থাকবে না।

এদিন হরিরামপুরের সভা থেকে মমতা বলেন, ‘বিরোধী দেখলেই জেলে ভরছে। গণতন্ত্রের সবচেয়ে বড় জায়গা এখন জেল। ফের ক্ষমতায় এলে নির্বাচন বলে আর কিছু থাকবে না। বিরোধীদের সবাইকে জেলে ভরে বিজেপি ভোট ব্যবস্থাটাকেই তুলে দেবে। বাকিদের এনআরসি করে দেশ থেকে তাড়াবে। জানেন ইউনিফর্ম সিভিল কোড কী? আপনার ধর্ম নিষিদ্ধ, আপনার আচার নিষিদ্ধ, আপনার আচরণ নিষিদ্ধ। মানুষের কোনও অস্তিত্ব থাকবে না। তপশিলি, আদিবাসী, সংখ্যালঘু, সাধারণ মানুষের কোনও অস্তিত্ব থাকবে না। একটা দল, একটা নেতা, দেশে আর গণতন্ত্র থাকবে না। এই নির্বাচনে মোদী যদি জেতেন, শেষ নির্বাচন, আর মানুষকে ভোট দিতে দেবেন না, সবাইকে দেশ থেকে তাড়িয়ে দেবেন। এনআরসি করে তাড়াবে, জেলগুলোকে ভর্তি করে দেবে। বিরোধী দল দেখলেই, তার বিরুদ্ধে অত্যাচার, অনাচার, ব্যাভিচার।’

এর পাশাপাশি এদিন মমতা বলেন, ‘ওরা মানুষের প্রাপ্য সব  টাকা বন্ধ করে দিয়েছে। তাই ওরা হল বন্ধ সরকার। বালুরঘাটের নাম বলতে পারে না। বলে বেলুরঘাট। খানে যে সাংসদ ছিলেন, তাঁর নামটাও ঠিক করে বলতে পারেনি। আর একজন আসে ভোট পাখি। বছর বছর দেখা নেই। তোমার দেখা নাই রে তোমার দেখা নাই। নরেন্দ্র মোদির এত বড় সাহস! বলছে বেছে বেছে সবাইকে জেলে ভরবে! আরে বেছে বেছে জনতা তোমাকে ভোট দেবে না। হিম্মত থাকলে কাজ করে ভোট নাও। সাফল্য দেখিয়ে ভোট নাও। ১০ বছরে কী কাজ করেছ, তার রেকর্ড দেখাও। ওরা বলছে, জনতাকে উল্টো ঝুলিয়ে সিধে করে দেবে? আরে, জনতা তোমাদের সরকারটাই উল্টে দেবে। ওরা বলছে দুর্নীতি হয়েছে। প্রমাণ দাও। বার বার বলেছি, বাংলা, বিহার, উত্তরপ্রদেশ আর মহারাষ্ট্র— চার রাজ্যের দুর্নীতির তালিকা প্রকাশ করে দেখাও কোথায় কত দুর্নীতি হয়েছে, কত মহা দুর্নীতি হয়েছে। বাংলায় দুর্নীতি হয়নি। লোকালি কয়েক জন বদমায়েশি করেছিল, আমরা বাদ দিয়ে দিয়েছি। তারপরও টাকা আটকে রেখে দিয়েছে।’

Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

ঝাড়খন্ড থেকে রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী জাকির হোসেনকে হুমকি দিল দুষ্কৃতীরা, তৎপর পুলিশ

সাইক্লোন এগোচ্ছে দ্রুতগতিতে স্থলভাগের দিকে, রবিবার সারারাত চলবে তাণ্ডব

ঝড় মোকাবেলায় প্রস্তুত হলদিয়া, নবদ্বীপ পুরসভা চালু করল বিশেষ হেল্প লাইন নম্বর

‘বিষদাঁত আমি ভেঙে দেব, কী নোটিস পাঠাতে হয় আমি দেখিয়ে দেব’, পাট্টার আশ্বাস মমতার

রামলালকে কাঁঠাল দিয়ে বরন করল জঙ্গলমহলের গ্ৰামবাসীরা

‘আমার প্রার্থী সায়নী, আগের বার আপনারা অতটা সার্ভিস পাননি’ মিমি প্রসঙ্গে মমতা

Advertisement
এক ঝলকে
Advertisement

জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর