Comm Ad 2020-WB Tourism body

পুরুলিয়ায় এবার ৯-০ হবে, হুঙ্কার শুভেন্দুর

Share Link:

পুরুলিয়ায় এবার ৯-০ হবে, হুঙ্কার শুভেন্দুর

নিজস্ব প্রতিনিধি: গত পঞ্চায়েত নির্বাচনের সময় থেকেই পুরুলিয়াতে ভেলকি দেখাচ্ছে গেরুয়া শিবির। ২০১৮ সালের সেই নির্বাচনে পুরুলিয়ার জেলা পরিষদ তৃণমূলের দখলে থাকলেও গ্রাম পঞ্চায়েত স্তরে সিংহভাগ আসন যেমন বিজেপি পেয়েছিল ঠিক তেমনি বেশিরভাগ পঞ্চায়েতে বোর্ডও গড়েছিল বিজেপি। লোকসভায় কার্যত ক্লিনস্যুইপে জেলার আসন দখল করেছিল বিজেপি। কিন্তু এদিন সেই পুরুলিয়াতে সেভাবে জমলই না শুভেন্দু অধিকারীর রোড-শো। এদিন শুভেন্দুর রোড-শোতে যে ভিড় হয়েছিল তার থেকে বেশি ভিড় লোকসভা নির্বাচনের সময় বিজেপির মিছিল বা সভাতে চোখে পড়েছে। সেই তুলনায় এদিন ভিড় অনেকটাই কম ছিল। আর তাই রোড শো চলাকালীন সময়ে মেজাজও বিগড়োতে দেখা গিয়েছে শুভেন্দু অধিকারীর।
 
রবিবারের দুপুরে পুরুলিয়ার কাশীপুরে ছিল শুভেন্দুর রোড শো। আগামী ১৯ জানুয়ারি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জনসভা রয়েছে পুরুলিয়ায়। তার আগেই এদিন পুরুলিয়ায় গেরিয়া শিবির নিজেদের শক্তি তুলে ধরতে কাশীপুরে এই রোড শো ও সভার আয়োজন করে যেখানে প্রধান অতিথিই ছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। এদিন সেই রোড শোয়ে অংশ নেওয়ার আগে শুভেন্দু অভিযোগ করে বলেন, ‘প্রশাসনকে ব্যবহার করে সন্ত্রাস চালাচ্ছে তৃণমূল। মিথ্যে মামলা দিচ্ছে বিজেপি কর্মীদের নামে। আমি জানি এগুলো কার নির্দেশে হচ্ছে। তাই বলছি খুব নিন্দনীয় ঘটনা এসব। গত ভোটে মানুষ দুহাত তুলে পদ্মফুলে ভোট দিয়েছেন। আগামীতেও দেবেন। কেস দিয়ে বিজেপিকে আটকে রাখতে পারবেন না। মানুষ এখানকার বিধায়ককে দূরে সরিয়ে দিয়েছেন। পঞ্চায়েত থেকে জেলা পরিষদ পর্যন্ত নিজের লোককে বসিয়ে রেখেছেন বিধায়ক। আদর্শ নির্বাচনী বিধি চালু হলে বিধায়ক হয়তো প্রচারে বেরতে পারেন, কিন্তু তাঁর প্রচারে কোনও লোক থাকবে না।’ 
 
এদিন কাশীপুর ন'পাড়া এলাকা থেকে শুরু হয় শুভেন্দুর রোড শো। সেই রোড শোয়ের পর কাশীপুর মোড় এলাকায় আয়োজিত হয় সভা। এদিন রোড শোয়ে তৃণমূলকে নিশানা করে শুভেন্দু অধিকারী তোপ দেগে বলেন, ‘পুলিসশকে কাজে লাগানো হচ্ছে। এই পুলিশকে কাজে লাগিয়েই মধ্যরাতে গণনায় কারচুপি করেছে তৃণমূল। কীভাবে পঞ্চায়েতের ক্ষমতা দখল করেছে তৃণমূল, তা জানি।’ এদিন রোড শো চলাকালীন সময়ে একটি গাড়ি কোনও ভাবে ঢুকে পড়ে মিছিলে। তার জেরে মিছিলে সাময়িক উত্তেজনা দেখা দেয়। গাড়িটিতে ভাঙচুর চালায় সভায় উপস্থিত জনতা। যা ঘিরে খানিক গন্ডগোল হয়। তারপর গাড়িটি কোনওভাবে বেরিয়ে যায়। কার গাড়ি, কীভাবে ঢুকল তা এখনও জানা যায়নি। এই ঘটনায় পুলিশকে কড়া আক্রমণ করেন শুভেন্দু। পুলিস তার দায়িত্ব পালন করেননি বলে তোপ দাগেন। বলেন, ‘আমরা পুলিসের অনুমতি নিয়ে এসেছি। অথচ মিছিলের আগে পরে করে স্থানীয় পুলিসকে দেখা যাচ্ছে না। এই মিটিংগুলো দেখে আসকে ওদের মাথা খারাপ হয়ে গিয়েছে। তাই গাড়ি ঢুকিয়ে সভা ভন্ডুলের চেষ্টা করছে। রঘুনাথপুররে আইসিকে সিবিআই ডেকেছে। পুরুলিার এসপি-র নামও লালার কম্পিউটারে আছে।’
 
এদিন প্রায় ৩ কিলোমিটার রাস্তায় মিছিল হয়। মিছিল শেষে সভা থেকেও তৃণমূলকে আক্রমণ শানেন শুভেন্দু অধিকারী। বলেন, ‘দীর্ঘ পথ পাড়ি দিয়ে এখানে পথসভা করছি। সবাই আশীর্বাদ করেছেন। ভোটের পর আয়ুষ্মান ভারত চালু হবে। আয়ুষ্মান ভারত নিয়ে মুম্বইয়ের টাটা মেডিকেলে চিকিৎসার সুযোগ পাবেন। এখন তো বলছে কিসান নিধি প্রকল্প চালু করবে। আসলে এখন যমের দুয়ারে পৌঁছে গিয়েছে সরকার। কেউ কি আদৌ স্বাস্থ্যসাথী কার্ডে চিকিৎসা পেয়েছেন? কলকাতা ও দিল্লিতে একই দলের সরকার চাই। একই দলের সরকার না হলে বেকারদের কর্মসংস্থান হবে না। পুরুলিয়ায় এবারে ৯-০ হবে। মোদিজীর হাতে বাংলাকে তুলে দিতে হবে। লালমাটির দিলীপ ঘোষ আর জঙ্গলমহলের শুভেন্দু হাত মিলিয়েছি। তাই আমরা জিতব। এখানে বিজেপি আসছে, বিজেপি আসবে। আমরা সোনার বাংলা গড়ব। ১৮ তারিখ তৃণমূলের মালকিন আসছেন। হয়তো মিথ্যাশ্রী-কুত্সাশ্রী দেবেন। আপনাদের সতর্ক থাকতে হবে।’

Comm Ad 2020-LDC Haringhata Meet

More News:

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email & Phone No. will not be published. Required fields are marked (*).

এই মুহূর্তে Live

Comm Ad 2020-himalaya RC

Stay Connected

Get Newsletter

Featured News

Advertisement

Comm Ad 2020-WB Tourism RC

কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের  সমাপ্তি অনুষ্ঠান

কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের সমাপ্তি অনুষ্ঠান

#

#

#

#

Voting Poll (Ratio)

2020 New Ad HDFC 05

Editors Choice

Comm Ad 2020-WB Tourism RC