এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




হিন্দিতে ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’ শ্লোগান সঠিকভাবে লিখতেই পারলেন না কেন্দ্রীয় মন্ত্রী




নিজস্ব প্রতিনিধি, ভোপাল: মেয়েদের সুরক্ষিত রাখতে ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’ প্রকল্প চালু করেছে মোদি সরকার। অথচ খোদ কেন্দ্রের নারী ও শিশুকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী হিন্দিতে সঠিকভাবে ওই শ্লোগান লিখতেই পারলেন না। পরিবর্তে ভুল শ্লোগান লিখলেন। আর মন্ত্রীর ওই কীর্তি ইতিমধ্যেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। নেটিজেনরা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর ওই কাণ্ড দেখে হেসে লুটোপুটি খাচ্ছেন।

গতকাল মঙ্গলবার মধ্যপ্রদেশের ধর জেলার ব্রহ্মকুণ্ডির এক বিদ্যালয়ে ‘স্কুল চলো অভিযান’ কর্মসূচিতে প্রধান অতিথি হিসাবে হাজির হয়েছিলেন স্থানীয় বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় নারী ও শিশুকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী সাবিত্রী ঠাকুর। অনুষ্ঠানের মাঝপথেই একটি সাদা রঙের বোর্ডে ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’ শ্লোগান লিখতে গিয়ে কার্যত নাকানিচোবানি খান তিনি। খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির তোলা শ্লোগানই যে পুরো জানেন না কেন্দ্রীয় মন্ত্রী, তা বোঝা গিয়েছে হোয়াইটবোর্ডের লেখা দেখেই। ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’-এর জায়গায় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দেবনাগরী ভাষায় লেখেন, ‘বেটি পড়াও, বাঁচাও’।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কেন্দ্রীয় নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রীর ওই কীর্তি ভাইরাল হয়েছে। আর সুযোগ পেয়েই সাবিত্রী ঠাকুরকে খোঁচা দিতে দেরি করেনি কংগ্রেস নেতৃত্ব। মধ্যপ্রদেশ কংগ্রেসের মুখপাত্র কে কে মিশ্র কটাক্ষের সুরে বলেছেন, ‘গণতন্ত্রের পক্ষে সবচেয়ে দুর্ভাগ্যের হল, যারা দেশের গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রকের দায়িত্বে তাঁরাই মাতৃভাষায় স্বাচ্ছ্বন্দ্য নন।’ নেটা নাগরিকদের একাংশ রসিকতা করে বলেছেন, ‘সংবিধান সংশোধন করে ভোটে লড়ার ক্ষেত্রে ন্যূনতম শিক্ষাগত যোগ্যতা এবার চালু করা উচিত।’ উল্লেখ্য নির্বাচন কমিশনের কাছে দায়ের করা হলফনামায় নিজের শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসাবে দ্বাদশ শ্রেণি উত্তীর্ণের কথা জানিয়েছিলেন সাবিত্রী ঠাকুর।  




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

বিচারকদের রাজনীতিতে পা ঠেকাতে বিল আসছে রাজ্য সভায়

হরিয়ানার নুহতে সাম্প্রদায়িক অশান্তির আশঙ্কায় বন্ধ মোবাইল ইন্টারনেট পরিষেবা

‘কভি শুনা, রুপিয়া দে কে মিনিস্ট্রি নেহি দিয়া’, নীতীশ আর চন্দ্রবাবুকে নিশানা মমতার

কাঁওয়ার যাত্রা নিয়ে যোগী সরকারের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে মামলা

বাজেট অধিবেশন নিয়ে মোদি সরকারকে তোপ খাড়গের

‘রিল’ তৈরির জন্যে লক্ষাধিক টাকার গহনা চুরি, DSLR কেনা হল না নীতুর

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর