এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




LIVE: তিরুঅনন্তপুরম থেকে জয়ী কংগ্রেস প্রার্থী শশী থারুর




নিজস্ব প্রতিনিধি, নয়াদিল্লি: ফের নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন সরকার? নাকি ২০০৪ সালের মতো পাশার দান উল্টে ক্ষমতা দখল করবে ইন্ডিয়া জোট? ওই প্রশ্নের জবাব জানতে মঙ্গলবার সকাল আটটা থেকে দেশজুড়ে শুরু হয়েছে ৫৪২ লোকসভা আসনের ভোট গণনার কাজ। নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার ঘেরাটোপে প্রথমে শুরু হয়েছে পোস্টাল ব্যালট গণনার কাজ। পোস্টাল ব্যালটে গণনা শেষের পরে শুরু হবে বৈদ্যুতিন ভোটযন্ত্রের ভোট গণনা। ৫৪২ লোকসভা আসনের পাশাপাশি ওড়িশা ও অন্ধ্রপ্রদেশ বিধানসভা ভোটের গণনাও চলবে। সেই সঙ্গে হিমসচল প্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ-সহ একাধিক রাজ্যের বেশ কয়েকটি বিধানসভা আসনের উপনির্বাচনেরও ভোট গণনা শুরু হয়েছে। দিল্লির মসনদ দখলের ধুন্ধুমার লড়াইয়ের সর্বশেষ খবর পেতে সঙ্গে থাকুন আমাদের-

রাজৌরি অনন্তনাগ থেকে হেরে গেলেন মেহবুবা মুফতি। 

বারামুলা থেকে হেরে গেলেন ওমর আবদুল্লাহ। 

বিদিশা থেকে জয়ী শিবরাজ সিং চৌহান।

অমেঠিতে লক্ষাধিক ভোটে পিছিয়ে স্মৃতি ইরানি। 

তিরুঅনন্তপুরম থেকে জয়লাভ করলেন কংগ্রেস প্রার্থী শশী থারুর।

কনৌজে ১ লক্ষ ১১ হাজার ৭৪৩ ভোটে এগিয়ে রয়েছেন সমাজবাদী পার্টি প্রার্থী অখিলেশ যাদব।

সুলতানপুর কেন্দ্রে ২০ হাজার ভোটে পিছিয়ে রয়েছেন মানেকা গান্ধি।

পাটুলিপুত্র কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন আরজেডি নেত্রী মিসা ভারতী।

হাসান কেন্দ্রে হেরে গেলেন ধর্ষণে অভিযুক্ত জেডিএস প্রার্থী প্রজ্জ্বল রাভান্না।

উত্তরপ্রদেশের অর্ধেকের বেশি আসনে পিছিয়ে রয়েছে বিজেপি। উত্তরপ্রদেশে ৮০টি আসনের মধ্যে ৪১টি আসনে এগিয়ে ইন্ডিয়া জোট। 

ফতেপুর কেন্দ্র থেকে পিছিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতি।

এখনও পর্যন্ত ২৭০টি আসনে এগিয়ে রয়েছে এনডিএ জোট, যা সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজনীয় সংখ্যা থেকে কম।

আমেঠি কেন্দ্রে ৪৭ হাজার ভোটে পিছিয়ে রয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি।

গুরদাসপুরে কংগ্রেস প্রার্থী এগিয়ে রয়েছে সুখজিন্দর সিং রানদাওয়া।

গান্ধিনগর কেন্দ্রে জয়ী হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ।

হাসান কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন জেডিএস প্রার্থী প্রজ্জ্বল রাভান্না।

অনন্তনাগ-রাজৌরি কেন্দ্রে পিছিয়ে রয়েছেন মেহবুবা মুফতি।

বারামুল্লা কেন্দ্রে পিছিয়ে রয়েছেন ওমর আবদুল্লা।

মান্ডি কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী কঙ্গনা রানাওয়াত।

মৈনপুরী কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন সমাজবাদী পার্টির প্রার্থী ডিম্পল যাদব।

বুদায়ুন কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছে সমাজবাদী পার্টির প্রার্খী আদিত্য যাদব।

নীলগিরি কেন্দ্র থেকে পিছিয়ে বিজেপি প্রার্থী এল মুরুগান।

চেন্নাই মধ্য কেন্দ্র থেকে এগিয়ে গেলেন ডিএমকের প্রার্থী দয়ানিধি মারান।

কোটা কেন্দ্র থেকে ফের এগিয়ে গেলেন লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লা।

যোধপুরে এগিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী গজেন্দ্র সিং শেখওয়াত।

ফের বারাণসী কেন্দ্র থেকে এগিয়ে গেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

তিরুঅনন্তপুরম থেকে এগিয়ে গিয়েছেন কংগ্রেস নেতা শশী থারুর।

কোটা কেন্দ্রে পিছিয়ে রয়েছেন লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লা।

বারাণসীতে পিছিয়ে গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, পিছিয়ে গিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি।

গুরগাঁও কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন কংগ্রেস প্রার্থী রাজ বব্বর।

কুরুক্ষেত্র কেন্দ্র থেকে পিছিয়ে রয়েছে বিজেপি প্রার্থী নবীন জিন্দল।

লখনউ কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী রাজনাথ সিং।

মৈনপুরী কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছে সমাজবাদী প্রার্থী ডিম্পল যাদব।

শিবগঙ্গা কেন্দ্রে এগিয়ে কংগ্রেস প্রার্থী কার্তি চিদম্বরম।

নীলগিরি কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছে ডিএমকে প্রার্থী এ রাজা। 

শ্রীপেরামবুদুর কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন ডিএমকের প্রার্থী টি আর বালু।

বিকানীর কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী অর্জুন রাম মেঘওয়াল।

ভাটিন্ডা কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন শিরোমণি অকালি দলের প্রার্থী হরসিমরত সিং বাদল।

জলন্ধর লোকসভা কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছে কংগ্রেস প্রার্থী চরঞ্জিত সিং চান্নি।

বিড লোকসভা কেন্দ্র থেকে বিজেপি প্রার্থী পঙ্কজা মুণ্ডে এগিয়ে।

লুথিয়ানা কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন কংগ্রেস প্রার্থী অমরিন্দর সিং রাজা।

গয়া আসন থেকে এগিয়ে জিতনরাম মাঝি।

২৯৪টি আসনে এগিয়ে এনডিএ, ১৬৮টি আসনে এগিয়ে ইন্ডিয়া ও অন্যান্যরা এগিয়ে ১৯টি আসনে

কনৌজ কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছে সমাজবাদী পার্টির প্রার্থী অখিলেশ যাদব।

বারামতী কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন এনসিপি প্রার্থী সুপ্রিয়া সুলে।

তিরুঅনন্তপুরমে পিছিয়ে রয়েছে কংগ্রেস প্রার্থী শশী থারুর।

করনাল আসন থেকে পিছিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থী মনোহর লাল।

এনডিিএ ১১০টি আসনে এগিয়ে, ইন্ডিয়া ৬৬টি আসনে এগিয়ে রয়েছে।

গান্ধিনগর কেন্দ্রে এগিয়ে রয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

রায়বেরেলি কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধি।

বারাণসী কেন্দ্র থেকে এগিয়ে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

এনডিএ ১০০টি আসনে এগিয়ে ও ইন্ডিয়া জোট ৩৮টি আসনে এগিয়ে।

এনডিএ ৪৮টি আসনে ও ইন্ডিয়া জোট ২১টি আসনে এগিয়ে রয়েছে।

এনডিএ ৭০টি আসনে ও ইন্ডিয়া ২৫টি আসনে এগিয়ে রয়েছে।

এখনও পর্যন্ত এনডিএ ১১টি আসনে ও ইন্ডিয়া জোট ৬টি আসনে এগিয়ে রয়েছে।




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

দুই দেশের মধ্যে সুসম্পর্কের বার্তা, হাসিনার সঙ্গে বৈঠকে মোদি

বদলার রাজনীতি চন্দ্রবাবুর, গুঁড়িয়ে দেওয়া হল জগনের দলের কার্যালয়

প্রজ্বল রেভান্নার ভাই সুরজ ‘সমকামী’, গ্রেফতার হলেন দলেরই কর্মী

সৌজন্য বজায় রাখলেন মমতা, মোদি-শাহকে পাঠালেন আম

ওয়ানাডে প্রিয়াঙ্কার হয়ে প্রচারে যেতে পারেন মমতা

তামিলনাডুতে বিষ মদ কাণ্ডে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫১  

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর