এই মুহূর্তে

বিধায়কদের অপমান, বিজেপির বিরুদ্ধে রাজ্যজুড়ে প্রতিবাদ তৃণমূ্লের

Courtesy - Google

নিজস্ব প্রতিনিধি: উনিশের ভোটে যে সব ভোট ব্যাঙ্কের হাতধরে বিজেপি(BJP) বাংলায় ঐতিহাসিক সাফল্যের মুখ দেখেছিল, সেই ভোটব্যাঙ্কের অন্যতম ছিল তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের(SC and ST People) ভোটব্যাঙ্ক। এবার সেই দুই ভোটব্যাঙ্ককেই অপমান করার বিস্ফোরক অভিযোগ উঠেছে বিজেপির বিধায়কদের বিরুদ্ধেই। কার্যত বিজেপি নিজে থেকেই এহেন মারাত্মক অস্ত্র তুলে দিয়েছে তৃণমূলের(TMC) হাতে। আর তা হাতে পেতেই বিন্দুমাত্র সময় নষ্ট না করেই শনিবার সকাল থেকেই রাজ্যজুড়ে বিজেপির বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমে পড়ছে তৃণমূল কংগ্রেস। তাঁদের অভিযোগ, রাজ্য বিধানসভা ভবন(West Bengal State Assembly) চত্বরে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর(Suvendu Adhikari) নেতৃত্বে আম্বেদকর মূর্তির পাদদেশে গঙ্গাজলে শুদ্ধিকরণের যে ঘটনা ঘটানো হয়েছে তা আদতে তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের মানুষকে অপমান করারই সমতুল্য। কেননা সেখানে তৃণমূলের তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের বিধায়করা বসেছিলেন।

শুক্রবার বিজেপির তরফে বিধানসভা চত্বরে আম্বেদকর মূর্তির পাদদেশ গঙ্গাজল দিয়ে ধোয়ানো হয়। তৃণমূলের ধর্না চলাকালীন ওই মূর্তির পাদদেশে তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের বিধায়করা বসেছিলেন। সেই জায়গায় গঙ্গাজল ঢেলে কার্যত তাঁদের অপমান করা হয়েছে, বিজেপির বিরুদ্ধে এমনই অভিযোগ এনেছে তৃণমূল। যে ঘটনা নিয়ে আজ অর্থাৎ শনিবার রাজ্যজুড়ে প্রতিবাদ কর্মসূচি নিয়েছে তৃণমূল। এদিন সকাল ১০টা নাগাদ মুর্শিদাবাদ জেলার নারায়ণপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের ভোলাডাঙা মোড়ে ও হাওড়া শহরের ফকিরবাগান কাঠপোলে এই প্রতিবাদ কর্মসূচী শুরু হবে। বেলা ১১টার সময় বীরভূমের বোলপুর শহরের চৌরাস্তায় হবে প্রতিবাদ আন্দোলন। তারপর কোথাও দুপুর ১টা থেকে, কোথাও ২টো থেকে, কোথাও আড়াইটে থেকে প্রতিবাদ আন্দোলন শুরু হবে। কিছু কিছু জায়গায় বিকাল ৪টে বা ৫টা কিংবা সন্ধ্যা ৬টা থেকেও আন্দোলন হবে।  

ঘটনাচক্রে গুরুত্বপূর্ণ হল, বিজেপি বিধায়করা রাজ্য বিধানসভা চত্বরে বুধবার ও বৃহস্পতিবার যে ঘটনা ঘটিয়েছেন, তা নিয়ে তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার তিনি নির্দেশ দেন, এবার থেকে বিধানসভা চত্বরে ধর্না, অবস্থান, বিক্ষোভ, মিটিং, মিছিল করতে গেলে আগাম অনুমতি নিতে হবে। অনুমতি ছাড়া কোনও কর্মসূচি করা যাবে না। এছাড়াও বিধানসভার কাজের সময় শেষ হয়ে গেলে, কোনও বিধায়ক থাকতে পারবেন না। কারণ নিরাপত্তারক্ষীরা চলে যাবেন। সেই সূত্রে এটাও দেখা গিয়েছে, আম্বেদকর মূর্তির পাদদেশে বিধানসভার মহিলা নিরাপত্তারক্ষীরা ঘিরে রেখেছিলেন। শুক্রবার বিজেপি বিধায়করা মাথায় কলসি করে গঙ্গাজল নিয়ে এসে আম্বেদকর মূর্তির পাদদেশ ধুইয়ে দেয়। পরে গামছা দিয়ে ওই স্থান মোছেন বিজেপি বিধায়করা। বিজেপির পক্ষ থেকে বলা হয়, তৃণমূল বিধায়করা অপবিত্র করেছেন।এরপরেই বিজেপির বিরুদ্ধে তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের মানুষদের অপমান করার অভিযোগ তোলে তৃণমূল। 

বিধানসভায় সাংবাদিক বৈঠক করে তৃণমূলের শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়, তাপস রায়, চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, বীরবাহা হাঁসদা, শিউলি সাহা দাবি করেন, মুখে দলিত প্রেমের কথা বলে কিন্তু বাস্তবে আদিবাসী সম্প্রদায়ের মানুষদের চূড়ান্তভাবে অপমানিত করেছে বিজেপি। আদিবাসীদের অস্পৃশ্য করে রেখেছে ওরা। বিধানসভা হল গণতন্ত্রের পীঠস্থান। সেখানে বিজেপির গঙ্গাজলে কর্মকাণ্ড গণতন্ত্র বিরোধী ও আদিবাসী সম্প্রদায়ের ভাবাবেগে আঘাত করা। বিজেপি শাসিত রাজ্যে ক্রমাগত দলিতদের উপর অত্যাচার হয়ে চলেছে। সংবিধানকে অবজ্ঞা করছে বিজেপি। সব থেকে বড় কথা শুভেন্দুর এই আম্বেদকর মূর্তির পাদদেশ ধুইয়ে দেওয়ার ঘটনায় যেভাবে বিজেপির বিরুদ্ধে তফসিলি জাতি ও উপজাতি সম্প্রদায়ের মানুষকে অপমান করার অভিযোগ উঠেছে তাতে করে পদ্মশিবিরেই প্রশ্ন উঠে গিয়েছে। ২৪’র ভোটের আগে দলকে যেভাবে শুভেন্দু কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে দিয়েছেন তাতে এখন এই ইস্যুতে কেউ তাঁকে সমর্থন করছেন না।

Published by:

Koushik Dey Sarkar

Share Link:

More Releted News:

ভুয়ো আইপ্যাক কর্মীকে ৮৬ হাজার টাকা দিয়ে প্রতারিত হুমায়ুন কবীর

ভোট ঘোষণার আগেই রাজ্যে ১৫০ কোম্পানি আধা সেনা

ব্যারাকপুরে অপরাধ রুখতে সমস্ত থানায় ‘সাইবার বন্ধু’ প্রকল্পের সূচনা

বীরভূমে মাছ চাষের পুকুরে মুক্তো চাষ করার প্রশিক্ষণ

ঝাড়গ্রামে নিম গাছে গুজবের দুধকে ঘিরে মাতোয়ারা চারদিক

হাইকোর্ট অনুমতি দিলেই ১০ দিনের মধ্যে গ্রেফতার শেখ শাহজাহান :পার্থ

Advertisement

এক ঝলকে
Advertisement

জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর