এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




দল ছাড়ছেন, মানতে নারাজ লকেট! বৈঠক নাড্ডার সঙ্গে




নিজস্ব প্রতিনিধি: বাবুল দল ছেড়েছেন। পিছু পিছু ঠিক আরও কতজন বিজেপি ছাড়বেন সেই তালিকা এখনও গেরুয়া শিবিরের নেতাদের কাছে পরিষ্কার নয়। তবে লাইনে যে অনেকেই আছেন সেটা তাঁরা বিলক্ষণ জানেন। গেরুয়া শিবিরের অন্দরে সেই জল্পনা আরও জোরদার করে তুললে তৃণমূলের তরফে দাবি করা হয়েছে, বিজেপির অন্তত ৭জন সাংসদ তাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলেছেন। যে কোনও দিন যেকোনও মুহুর্তে তাঁরা বিজেপি ছেড়ে চলে আসবেন তৃণমূলে। সেই নামের তালিকায় নাকি রয়েছে হুগলির বিজেপি সাংসদ লকেট চ্যাটার্জীর নামও। যদিও লকেট নিজে তা মানতে নারাজ। কিন্তু এবার তাঁকে ঘিরেই জোরদার জল্পনা ছড়ালো বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠকের পরে।

লকেটের রাজনীতিতে প্রবেশ তৃণমূলের হাত ধরেই। তবে সত্যি কথা বলতে কী লকেট সেখানে না পেয়েছেন কদর না পেয়েছেন দাম। সেই কারনেই তাঁর বিজেপি যোগ। সেখানে যোগ দিয়েই তিনি হয়েছিলেন দলের মহিলা শাখার রাজ্য সভানেত্রীর দায়িত্ব ও পদ। পরে হয়েছেন সাংসদও। তাঁর সেই সাংসদ পদে জয় কার্যত তৃণমূলের পাশাপাশি অবাক করেছিল রাজ্যের ওয়াকিবহাল মহলকেও। রাজনীতিতে লকেটেরও যে কিছু দেওয়ার আছে, সিনেমার পর্দার বাইরে গিয়েও যে তিনি সফল হতে পারেন সেটা অনেকেই ভাবতে পারেননি। লকেট কিন্তু নিজে তাঁর সেই কর্মদক্ষতা প্রমাণ করেছেন। এহেন লকেট এখন রাজ্য রাজনীতির তারকা। বঙ্গ বিজেপির অন্যতম মহিলা মুখ। কিন্তু এখন তাঁকে ঘিরেই মেঘ জমছে গেরুয়া শিবিরের অন্দরে। প্রকাশ্যে কোনও বিজেপি নেতাই এই বিষয়ে কিছু স্বীকার না করলেও চার দেওয়ালের অন্দরে অনেকেই স্বীকার করছেন লকেটের সঙ্গে তৃণমূলের যোগাযোগ শুরু হয়ে গিয়েছে। যে কোনও দিন দল বদল করতে পারেন তিনি। আর এই জায়গায় দাঁড়িয়েই বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব একদমই চাইছেন না বাবুলের পরে বাংলার কোনও ওজনদার তারকা মুখ বিজেপির হাতছাড়া হোক। সেই কারনেই মঙ্গলবার লকেটকে নিয়ে বৈঠকে বসেছিলেন নাড্ডা। অন্তত রাজ্য বিজেপির নেতাদের এমনতাই দাবি।

যদিও লকেট এসব তথ্য মানতে নারাজ। তাঁর মতে বাজারে গালগপ্পো ছড়াচ্ছে তৃণমূল। তিনি বিজেপিতে ছিলেন, আছেন আর থাকবেন। তিনি এ প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, ‘আমাকে উত্তরাখণ্ডের বিধানসভা নির্বাচনে সহ পর্যবেক্ষক করা হয়েছে। সেখানে দু’দিন সফর করে সোমবার সকালেই আমি দিল্লি ফিরেছি। নাড্ডাজি ডেকে পাঠিয়েছিলেন উত্তরাখণ্ড নিয়ে আলোচনার জন্য। জাতীয় রাজনীতিতে যে সুযোগ আমাকে দেওয়া হয়েছে সেই দায়িত্ব যাতে ভালেভাবে পালন করতে পারি, সেই বিষয়েই তিনি এদিন পরামর্শ দিয়েছেন। নাড্ডাজির সঙ্গে দল ছাড়ার প্রসঙ্গে কোনও আলোচনাই হয়নি। নাড্ডাজি তো জানতেনই না যে এই ধরনের কোনও খবর রটেছে। আমিই বললাম। শুনে তো উনি অবাকই হয়েছেন। বুধবার যোশীজির সঙ্গে আবার আমাদের উত্তরাখণ্ড নিয়ে বৈঠক রয়েছে। সেই সব বিষয়েই কথা হয়েছে।’ লকেটের এই বক্তব্যের সূত্র ধরেই রাজ্য বিজেপি নেতাদের একাংশের দাবি, লকেট অনেক কিছুই বলছেন। কিন্তু সব সত্যি কথা বলছেন না। কেননা বিজেপির তরফে উত্তরাখণ্ডের নির্বাচনে পর্যবেক্ষক করা হয়েছে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রহ্লাদ যোশীকে। লকেট সেখানে সহ পর্যবেক্ষক এটাও সত্যিই। কিন্তু বিজেপিতে পর্যবেক্ষককে বাদ দিয়ে দলের সর্বভারতীয় সভাপতি নির্বাচবন বা সংগঠন নিয়ে সহ পর্যবেক্ষকের সঙ্গে আলোচনা করেছেন এমন নজীর নেই। তাই লকেট যতই বলুন না কেন উত্তরাখণ্ড নিয়েই নাড্ডাজির সঙ্গে বৈঠকে তাঁর আলোচনা হয়েছে, বাস্তব সম্পূর্ণ ভিন্ন।

বাবুল সুপ্রিয় তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দেওয়ার পরে পরেই লকেটের বিজেপি ছাড়ার জল্পনা ছড়িয়ে পড়ে। এমনকি একটি সংবাদ সংস্থার তরফে এটাও দাবি করা হয় যে, তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে লকেট বৈঠক করেছেন। যদিও লকেট তা অস্বীকার করেছেন। কিন্তু এখন রাজ্য বিজেপির নেতাদের একাংশের দাবি, যা রটে তার কিছু তো ঘটে। সেই কারনেই নাড্ডাজি দ্রুত বৈঠকে বসেছেন লকেটের সঙ্গে, তাঁর দলত্যাগ ঠেকাতে। তবে লকেট নিজে জানিয়েছেন, ‘বিজেপি ছাড়ার কোনও পরিকল্পনা নেই আমার। আমি কেন বিজেপি ছাড়তে যাব? আগামী বছর উত্তরাখণ্ড বিধানসভা নির্বাচনে সহ-পর্যবেক্ষকের দায়িত্ব দিয়েছে। বাংলা থেকে প্রথমবার কোনও মহিলাকে এই ধরনের সুযোগ দেওয়া হয়েছে। আমার সামনে এখন জাতীয় রাজনীতিতে কাজ করার সুযোগ। তা ছেড়ে আমি রাজ্য রাজনীতিতে নিজেকে কেন সীমাবদ্ধ করব। তার কোনও কারণ তো দেখতে পাচ্ছি না।’ তবে ঘটনা এটাই এদেশের রাজনীতিতে বহু নেতানেত্রীকে দলবদলের এক ঘন্টা আগেও বলতে শোনা গিয়েছে তাঁরা দলবদল করছেন না। একঘন্টা বাদে সেই ছবি আমূল বদলে যেতেও দেখা গিয়েছে। লকেট এখন কোন পথে হাঁটেন সেটাই দেখার।




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

মালদার মহদীপুর আন্তর্জাতিক স্থলবন্দরের সীমান্ত দিয়ে আমদানি – রপ্তানি বন্ধ

শিব পূজোয় মাতবেন বীরভূমের বক্রেশ্বর ধামের বাসিন্দারা

গোপনে নাবালিকা মেয়ের বিয়ে,বাড়ির সামনে ধর্না অবস্থান কন্যাশ্রী ক্লাবের

কোলে সদ্যজাত শিশু,  রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে মা

একুশের মঞ্চে মমতার উত্তরবঙ্গ আক্ষেপ, গুরুত্ব পেলেন জগদীশ

সম্পত্তি নিয়ে বিবাদের জেরে দাদাকে খুন, পলাতক অভিযুক্ত ভাই

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর