এই মুহূর্তে

WEB Ad Valentine 3

WEB Ad_Valentine




মোদি-বিজেপিকে অহঙ্কারী বলে খোঁচা সঙ্ঘ নেতা ইন্দ্রেশ কুমারের




নিজস্ব প্রতিনিধি, জয়পুর: লোকসভা ভোটে ভরাডুবির জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও বিজেপি নেতৃত্বের কাঁটা ঘায়ে লাগাতার নুন ছিটিয়ে চলেছেন রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘের শীর্ষ নেতারা। ফল প্রকাশের পরেই সঙ্ঘের সরসঙ্ঘচালক মোহন ভাগবত মুখ খুলে মোদিকে ‘রাজপাঠ’ শিখিয়েছিলেন। পরে সংগঠনের মুখপত্র ‘অর্গানাইজারে’ লোকসভায় ভরাডুবির জন্য বিজেপি নেতা-কর্মীদের অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাসকে কাঠগড়ায় তোলা হয়েছিল। আর এবার ইন্দ্রেশ কুমার সরাসরি নাম না করে প্রধানমন্ত্রী এবং বিজেপি নেতৃত্বকে অহঙ্কারী বলে খোঁচা দিলেন।

বৃহস্পতিবার জয়পুরের কানোটায় ‘রামরথ অযোধ্যা যাত্রা দর্শন পূজন  অনুষ্ঠানে ভাষণ দিতে গিয়ে সদ্য লোকসভা ভোটের ফলাফলের প্রসঙ্গ উত্থাপন করে  সঙ্ঘের অন্যতম শীর্ষ নেতা বলেন, ‘প্রভু রামচন্দ্র সবার সঙ্গেই ন্যায়বিচার করেন। লোকসভার ফলাফলেই তার প্রমাণ। যে দলের নেতারা প্রভু রামকে ভক্তি করেন কিন্তু অহঙ্কারে ডুবে গিয়েছিলেন, সেই দলকে সবচেয়ে বড় দল তো বানিয়ে দিয়েছেন, কিন্তু পূর্ণ শক্তি দেননি। ২৪১ আসনেই থামিয়ে দিয়েছেন। অহঙ্কারের কারণে প্রভু রাম পূর্ণ শক্তি দেননি। কেননা, অহঙ্কারীদের প্রভু রাম কখনই ক্ষমা করেন না।’

বিজেপি’র পাশাপাশি বিরোধী ‘ইন্ডিয়া’ জোটকেও বিঁধেছেন ইন্দ্রেশ। সরাসরি ‘ইন্ডিয়া’ জোটকে রাম বিরোধী আখ্যা দিয়ে বলেছেন, ‘অহঙ্কারীদের প্রভু রাম যেমন ২৪১ আসনে রুখে দিয়েছেন, তেমনই যারা রাম বিরোধী তাদেরও প্রভু পূর্ণ সংখ্যাহগরিষ্ঠতা দেননি। ২৩৪ আসনেই রুখে যেতে হয়েছে।’ সূত্রের খবর, সদ্য সমাপ্ত লোকসভা ভোটে যেভাবে বিজেপি’র তরফে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে সর্বশক্তিমান হিসাবে তুলে ধরে প্রচার চালানো হয়েছে তাতে তীব্র আপত্তি ছিল সঙ্ঘ নেতৃত্বের। এমনকি মোদিো যেভাবে নিজেকে ভগবানের দূত হিসাবে তুলে ধরার মরিয়া প্রচেষ্টা চালিয়েছিলেন, তাও ভালো চোখে মেনে নেননি মোহন ভাগবতরা।




Published by:

Ei Muhurte

Share Link:

More Releted News:

ইন্ডিয়ার জোটসঙ্গী  প্রাক্তন মন্ত্রীর বাবার ক্ষতবিক্ষত দেহ উদ্ধার

উদ্ধবের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করা হয়েছে, দাবি জোশি মঠের শঙ্করাচার্যের

Zomato-তে ১৩৩ টাকার মোমো অর্ডার দিয়ে তরুণীর পকেটে এল ৬০,০০০, কীভাবে?

বাদল অধিবেশনে হাজির থাকতে চেয়ে লোকসভার অধ্যক্ষকে চিঠি জেলবন্দি অমৃতপাল সিংয়ের

Rath Yatra 2024 : পুরীর মন্দিরের চূড়ায় কেন জ্বালানো হয় মহা দীপ ?

প্রাক্তন DIG-র ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে ২৬ লাখ হাতিয়ে নিল খোদ ব্যাঙ্ক ম্যানেজার

Advertisement




এক ঝলকে
Advertisement




জেলা ভিত্তিক সংবাদ

দার্জিলিং

কালিম্পং

জলপাইগুড়ি

আলিপুরদুয়ার

কোচবিহার

উত্তর দিনাজপুর

দক্ষিণ দিনাজপুর

মালদা

মুর্শিদাবাদ

নদিয়া

পূর্ব বর্ধমান

বীরভূম

পশ্চিম বর্ধমান

বাঁকুড়া

পুরুলিয়া

ঝাড়গ্রাম

পশ্চিম মেদিনীপুর

হুগলি

উত্তর চব্বিশ পরগনা

দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা

হাওড়া

পূর্ব মেদিনীপুর